BAMCEF UNIFICATION CONFERENCE 7

Published on 10 Mar 2013 ALL INDIA BAMCEF UNIFICATION CONFERENCE HELD AT Dr.B. R. AMBEDKAR BHAVAN,DADAR,MUMBAI ON 2ND AND 3RD MARCH 2013. Mr.PALASH BISWAS (JOURNALIST -KOLKATA) DELIVERING HER SPEECH. http://www.youtube.com/watch?v=oLL-n6MrcoM http://youtu.be/oLL-n6MrcoM

Welcome

Website counter
website hit counter
website hit counters

Friday, October 9, 2015

#BEEFGATE#জম্মু-কাশ্মীর: গরু খাওয়ায় মুসলমান সাংসদকে পেটালেন বিজেপি বিধায়করা

Please skip the beef gate!Skip the Culture Shock!
It divides India vertically in Hindutva and Islam as it had been divided just before the Partition to have a Hindu Nation.
The Grand Hindu alliance excluding the democratic, secular and progressive forces and the father of the nation Killed Gandhi and Godse just performed the last vedic rites!And we are the Victims of Partition which continues!
पुरस्कार लौटाने से कुछ बदलने वाला नहीं है अगर हम लड़ाई के  मैदान में कहीं हैं ही नहीं!

গর্বের সাথে বলো, আমরা বাঙালি বাঘের বাচ্চা


Palash Biswas
জম্মু-কাশ্মীর:  গরু খাওয়ায় মুসলমান সাংসদকে পেটালেন বিজেপি বিধায়করা



















'বিফ পার্টি' করার অপরাধে বৃহস্পতিবার জম্মু-কাশ্মীর রাজ্যের বিধানসভার অধিবেশনে নির্দলীয় এক সাংসদকে বেধড়ক পেটালেন বিজেপি বিধায়করা।
বুধবার গরুর মাংস দিয়ে ভুরি ভোজের আয়োজন করেছিলেন ইঞ্জিনিয়ার রশিদ। এ ঘটনা নিয়ে রাজ্যের বিধানসভার অধিবেশনে তার ওপর চড়াও হন বিজেপি দলের গগণ ভাগত, রাজীব শর্মা, রবীন্দার রানাসহ মোট ছয় পার্লামেন্ট সদস্য। তারা রশীদকে আচ্ছামত পেটাতে থাকেন। পরে বিরোধী ন্যাশনাল কনফারেন্স দলের সদস্যরা রশীদকে ছাড়িয়ে আনেন। এ ঘটনার প্রতিবাদে অধিবেশন বর্জন করেন বিধানসভার সদস্যরা। 

ক্ষুব্ধ রশিদ জানিয়েছেন, ওই বিধায়কদের আচরণ নজিরবিহীন এবং কোনওভাবেই তা বরদাস্ত করা যায় না। তাঁর ওপর হামলায় জড়িত বিধায়কদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য তিনি বিধানসভার স্পিকারের কাছে নালিশ জানিয়েছেন।ল্যাঙ্গাটের বিধায়ক রশিদ বুধবার রাতে পার্লামেন্ট হোস্টেলে একটি পার্টির আয়োজন করেছিলেন। ওই পার্টিতে গরু মাংস দিয়ে তৈরি বিভিন্ন পদ পরিবেশন করা হয়। এ নিয়ে ক্ষুব্ধ ছিলেন বিজেপি সাংসদরা যার প্রকাশ ঘটেছে বৃহস্পতিবরের অধিবেশনে।

তবে রশিদ বলেছেন,এই পার্টির মাধ্যামে তিনি বার্তা দিতে চেয়েছিলেন যে, ধর্মীয় ব্যাপার কখনও আদালত বা আইনসভার বিচার্য হতে পারে না। পছন্দের খাবার খাওয়ার ক্ষেত্রে  বিধানসভা বা আদালত বাধা হয়ে উঠতে পারে না। যদিও জম্মু ও কাশ্মীরের সংবিধান অনুসারে গরুর মাংসের ওপর নিষেধাজ্ঞা রয়েছে। এই নিষেধাজ্ঞা অমান্য করলে কঠোর শাস্তির দাবিতে বিধানসভায় প্রস্তাবও এনেছে বিজেপি। তবে ওই প্রাচীণ আইনটি বাতিলের দাবি জানিয়েছে বিরোধী ন্যাশনাল কনফারেন্স এবং উপত্যকার কয়েকজন নির্দলীয় বিধানসভা সদস্য। -

Video:



--
Pl see my blogs;


Feel free -- and I request you -- to forward this newsletter to your lists and friends!

No comments:

Related Posts Plugin for WordPress, Blogger...